September 28, 2022, 7:54 pm


নিজস্ব প্রতিবেদক

Published:
2022-08-10 21:46:25 BdST

৩০ কোটি টাকায় আধুনিক হচ্ছে সায়েদাবাদ বাস টার্মিনাল


সায়েদাবাদ বাস টার্মিনাল ৩০ কোটি টাকা ব্যয়ে আধুনিক করা হচ্ছে বলে জানিয়েছেন ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশনের (ডিএসসিসি) মেয়র শেখ ফজলে নূর তাপস।

তিনি বলেন, এ কাজ আগামী বছরের মার্চের মধ্যে শেষ হবে। আজ বুধবার সকালে সায়েদাবাদে অবস্থিত ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশনের (ডিএসসিসি) কেন্দ্রীয় মোটর গ্যারেজ এবং সায়েদাবাদ বাস টার্মিনালের চলমান সংস্কার ও উন্নয়ন কাজ পরিদর্শন করেন মেয়র শেখ ফজলে নূর তাপস। পরে সাংবাদিকদের সঙ্গে মতবিনিময়কালে তিনি এ তথ্য জানান।

মেয়র তাপস বলেন, সায়েদাবাদ বাস টার্মিনাল অনেক আগে নির্মাণ হলেও দীর্ঘদিন সংস্কার না হওয়ায় এটি ভঙ্গুর অবস্থায় রয়েছে। জলাবদ্ধতাসহ অবকাঠামোগত নানা সমস্যা রয়েছে। এটি আধুনিক করতে কার্যক্রম হাতে নিয়েছি। গাড়ি রাখার শেড, টিকিট কাউন্টার, চালকদের বিশ্রাম ঘর, খাবার দোকান, গণ-শৌচাগারসহ সব আধুনিক সুযোগ সুবিধা রাখা হবে টার্মিনালে।

ডিএসসিসি মেয়র বলেন, ঢাকা শহরের গণপরিবহনকে শৃঙ্খলায় আনার জন্য রুট রেশনালাইজেশন কার্যক্রম হাতে নেয়া হয়েছে। দ্রুত কাজ চলছে। একটি যাত্রাপথ শুরু হয়েছে। আরও তিনটি যাত্রাপথ আগামী ১ সেপ্টেম্বর উদ্বোধন করা হবে। 

তিনি আরো বলেন, দুটি আন্তঃজেলা বাস টার্মিনালের নির্মাণের সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে। একটি কাঁচপুরে ও আরেকটি কেরানীগঞ্জে। একটির জায়গা অধিগ্রহণ করা হয়েছে। আমরা সেটির হস্তান্তর চেয়েছি। আরেকটি জমির অধিগ্রহণ কার্যক্রম হাতে নিয়েছি। এগুলো শেষ করতে ৩-৪ বছর সময় লাগবে। এ সময়ের মধ্যে এখানে বাসগুলো যাতে সুষ্ঠুভাবে পরিচালিত হতে পারে সে জন্য এর আধুনিকায়ন করা হচ্ছে।

আরেক প্রশ্নের জবাবে মেয়র তাপস বলেন, পোস্টার, বিভিন্ন ধরনের রঙ দিয়ে লিখে শহরের অবকাঠামোগুলোকে ঢেকে দেয়া হচ্ছে। এখানে জনগণের সচেতনতাই মুখ্য। সিটি কর্পোরেশন আশা করে তারা এগুলো থেকে বিরত থাকবেন। এক্ষেত্রে আইন রয়েছে, কিন্তু  প্রয়োগ করা হয় না। অবকাঠামো সুন্দর, পরিষ্কার-পরিচ্ছন্ন রাখা সবার দায়িত্ব বলেও জানান তিনি।

এ সময় অন্যদের মধ্যে কর্পোরেশনের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা ফরিদ আহাম্মদ, মৎস্য ও প্রাণিসম্পদ অধিদপ্তরের মহাপরিচালক খন্দকার মাহবুবুল হক, করপোরেশনের প্রধান প্রকৌশলী সালেহ আহম্মেদ, পরিবহন বিভাগের মহাব্যবস্থাপক মো. হায়দর আলী, মৎস্য ও প্রাণি সম্পদ মন্ত্রণালয়ের যুগ্ম সচিব মশিউর রহমান, প্রধান সম্পত্তি কর্মকর্তা রাসেল সাবরিন, প্রধান রাজস্ব কর্মকর্তা আরিফুল হক, অঞ্চল-১ এর আঞ্চলিক নির্বাহী কর্মকর্তা মেরীনা নাজনীন, অঞ্চল-৫ এর আঞ্চলিক নির্বাহী কর্মকর্তা মোহাম্মদ সাখাওয়াত হোসেন সরকার, ঢাকা মহানগর দক্ষিণ আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক কাজী মোর্শেদ হোসেন কামাল, ৪৮ নম্বর ওয়ার্ডের কাউন্সিলর মো. আবুল কালাম অনু, মহিলা কাউন্সিলর নাজমা বেগম, ঢাকা সড়ক পরিবহন মালিক সমিতির সভাপতি আজমল উদ্দিন আহমেদ, করপোরেশনের তত্ত্বাবধায়ক প্রকৌশলী কাজী বোরহান উদ্দিন, অঞ্চল-১ এর নির্বাহী প্রকৌশলী মিঠুন চন্দ্র শীল, অঞ্চল-৫ এর নির্বাহী প্রকৌশলী সাইফুল ইসলাম জয় প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

Unauthorized use or reproduction of The Finance Today content for commercial purposes is strictly prohibited.


Popular Article from FT বাংলা